img

পৃথিবীর প্রথম কম্পিউটারের নাম ও কম্পিউটার আবিষ্কারের ইতিহাস (The world’s first computer name is the history of computer invention)

/
/
/
201 Views

আজকের এই  তথ্য প্রযুক্তির  যুগে  আমরা বিজ্ঞানের পুজারি  হয়ে বাস করছি। আর আজকের এই  আবিস্কারের মধ্যে এক অসাধারণ  আবিস্কার হল কম্পিউটার। যা পাল্টে  দিয়েছে মানুষের জীবন ও সাথে সাথে পাল্টে দিয়েছে  পৃথিবীর ধরন। তাই আজ আমরা পাল্টে দেওয়া কম্পিউটারের সেই বিষ্ময়কর  আবিস্কার সর্ম্পকে নিচে বিস্তারিত আলোচনা করব। আরো এই অধ্যায়ে  আলোচনা করা হবে কম্পিউটার আবিস্কারের  ইতিহাস সর্ম্পকে।

What is computer?  কম্পিউটার কি?

আমরা সকলেই কম্পিউটার চিনি কিন্তু কম্পিউটার আসলে কি? কিভাবে  এটা দিয়ে কটিন ও জটিল জটিল কাজ সমাধান করা হয় তা অনেকেই  ভালভাবে জানি না। সাধারণভাবে কম্পিউটার বলতে এক ধরণের সুক্ষ গণনাকারি যন্ত্রকে বুঝায়। গ্রিক (compute) শব্দ থেকে  কম্পিউটার শব্দের  উদ্ভব  হয়েছে। যে ডিভাইজের মাধ্যমে বিভিন্ন ধরণের অডিও, ভিডিও কাজ ,বিভিন্ন অস্বাভাবিক ও সুক্ষ কাজ স্বাভাবিক ও নিখুতভাবে করা যায় থাকে কম্পিউটার বলে।

কম্পিউটারের প্রকারভেদ:-

ব্যবহার ও প্রয়োগের উপর ভিত্তি করে  কম্পিউটারকে সাধারণত  দুই ভাগে  ভাগ করা যায়।

যথা:

সাধারণ কম্পিউটার :এই কম্পিউটারে সকল ধরণের প্রোগ্রাম সংরক্ষিত থাকে।

  • বিশেষ কম্পিউটার: বিশেষ কম্পিউটারে একটি মাত্র প্রোগ্রাম সংরক্ষিত থাকে। কেবল মাত্র একটি  নির্দ্দিষ্ট কাজের জন্য এটি তৈরি করা হয়। অন্যদিকে ক্রিয়া ও গঠন রীতির  উপর ভিত্তি করে কম্পিউটারকে তিন ভাগে ভাগ করা যায়।

যথা;

  • ১। অ্যানালগ কম্পিউটার
  • ২। ডিজিটাল কম্পিউটার
  • ৩। হাইব্রিড কম্পিউটার

 

কম্পিউটারের জনক বা আধুনিক কম্পিউটারের জনক বা আবিস্কারক কে?

বিশ্বকে চমকে দেওয়া এই অসাধারণ কম্পিউটার আবিস্কারের ইতিহাস জানার আগে আমাদের জানার দরকার এই কম্পিউটারের আবিস্কারক বা আধুনিক  কম্পিউটার আবিস্কারের জনক কে?

কম্পিউটারের জনক?

ক্যামব্রিজ বিশ্ববিদ্যালয়ের (Cambridge university) অধ্যাপক চার্লস ব্যাবেজ সর্বপ্রথম ১৮৩৩ সালে ত্র্যানালটিক্যাল ইঞ্জিন(Analytical Engine) নামে একটি যান্ত্রিক Computer তৈরির পরিকল্পনা গ্রহণ করে একটি ইঞ্জিনের নকশা তৈরি করেন। চার্লস ব্যাবেজের উক্ত পরিকল্পনায় আধুনিক কম্পিউটারের ধারণা  ছিল বলে চার্লস ব্যাবেজকে কম্পিউটারের জনক বলা হয়।

আধুনিক কম্পিউটারের জনক কে?

কোয়ান্টাম বলবিদ্যায় নিউম্যান অপারেটর তত্ত্বর অগ্রদূত ব্যবহার তাছাড়া জ্যামিতি, প্রবাহী গতিবিদ্যা, সেটতত্ত্ব, যোগাশ্রয়ী পোগ্রামিং, অর্থনীতি,  কম্পিউটার বিজ্ঞান, পরিসংখ্যান সহ আরো অনেক বিশেষ ক্ষেত্রে অবদানের জন্য জন ভন নিউম্যানকে আধুনিক কম্পিউটারের জনক বলা হয়।

কম্পিউটারের আবিস্কারক কে?

১৯৪৩ সালে যুক্তরাষ্ট্রের আইবি এম (IBM) ও হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয় (Harvard University) এর যৌথ উদ্যোগে হাওয়ার্ড এইচ আইকেন এর তত্ত্বাবদানে (Mark-1)নামে একটি পূর্ণাঙ্গ Digital Computer নির্মিত হয়। আর ওই কারণে হাওয়ার্ড এইচ. আইকেন (Howard H.Aiken) কে কম্পিউটারের আবিস্কারক বলা হয়।

 

বাংলাদেশে কম্পিউটারের  ইতিহাস:-

আমরা কম্পিউটার সম্পর্কে জানার আগে যেটা জানার বিশেষ প্রয়োজন সেটা হল বাংলাদেশে কম্পিউটারের ইতিহাস সম্পর্কে বিস্তারিত জানা। নিচের পাঠ গুলো ভাল করে পড়ে বাংলাদেশে কম্পিউটারের ইতিহাস সম্পর্কে জেনে নিন।   সাধারণত  ষাট দশকের দিকে বাংলাদেশে কম্পিউটারের ব্যবহার শুরু হয় এবং নব্বই দশকের দিকে বাংলাদেশে কম্পিউটারের ব্যাপক প্রসার লাভ করে। ১৯৬৪ সালে বাংলাদেশের প্রথম কম্পিউটার ঢাকা-তে স্থাপিত হয়।

চিন্তা করলে দেখা যায় কম্পিউটারের ইতিহাস খুব বেশী দিনের পুরোনো না কম্পিউটার আমাদের হাতে আসছে  এখনও ১০০ বছরও হয়নি। আর এই সীমিত সময়ের মধ্যে কম্পিউটারের ইতিহাস বাংলাদেশ এক আমুল পরিবর্তনের দিকে নিয়ে যাচ্ছে। বাংলাদেশে কম্পিউটার ব্যবহারের পেচনে অনেক ইতিহাস জড়িয়ে  আছে নিচে বিস্তারিত জানুন।

 কম্পিউটার  আবিস্কারের ইতিহাস ও কম্পিউটারের অসাধারণ কিছু তথ্য:-

নতুন সৃষ্টির অগ্রযাত্রাকে বেগবান করতে কিভাবে এই কম্পিউটারের আবিস্কার রচনা হল? কোন  ইতিহাসকে কেন্দ্র করে ও কোন তথ্য প্রযুক্তি বিচার বিশ্লেষণের আলোকে এই অসাধারণ কম্পিউটার আবিস্কারের ইতিহাসের জন্ম হল তা আমাদের অবশ্যই জানতে হবে।

কম্পিউটার আবিস্কারের ইতিহাস এর পেছনে অক্লান্ত পরিশ্রম ও অশেষ জ্ঞানের  পরিধি নিহিত রয়েছে। অনেক ইতিহাসকে কেন্দ্র করে আজকের এই

অসাধারণ কম্পিউটারের জন্ম হয়েছে। অন্যদিকে কম্পিউটার আবিস্কারের পেছনে অনেক তথ্য ও যুক্তি রয়েছে যে তথ্য গুলোকে কেন্দ্র করে  আজকের এই কম্পিউটারের আবিস্কার। একমাত্র তথ্য ও প্রযুক্তিকে কাজে লাগিয়ে  আজকের এই কম্পিউটারকে জয় করা সম্ভব হয়েছে।

 

কম্পিউটার  আবিস্কারের  ইতিহাসকে বর্ণনা করতে গিয়ে আমরা বলতে পারি যে, কম্পিউটার আবিস্কারের পেছনে কয়েক বছরের ইতিহাস জড়ানো নয় এর পিছনে হাজার- হাজার বছরের ইতিহাস জড়িয়ে আছে। তাই পরিশেষে বলছি, কম্পিউটার আবিস্কারের ইতিহাস সম্পকে আরোও অনেক কিছু জানতে আমাদের bdtotto এর সাথে থাকুন।

ধন্যবাদ

সবাইকে

 

 

 

  • Facebook
  • Twitter
  • Google+
  • Linkedin
  • Pinterest

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This div height required for enabling the sticky sidebar